বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর, ২০২২, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

বিশ্বকাপের জমজমাট খেলা আজ, বিকালে আর্জেন্টিনা রাতে ফ্রান্স

জীবন যাপন নভেম্বর ২২, ২০২২, ০৭:১৬ এএম
বিশ্বকাপের জমজমাট খেলা আজ, বিকালে আর্জেন্টিনা রাতে ফ্রান্স
লিওনেল মেসি

বিকালে মাঠে নামছে লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনা, রাতে কিলিয়ান এমবাপ্পের ফ্রান্স। কাতার বিশ্বকাপের আজ জমে ক্ষীর হওয়ার দিন! একইদিনে শুরু হচ্ছে শিরোপার অন্যতম বড় দুই দাবিদারের বিশ্বকাপ অভিযান। ফাইনালের ভেন্যু লুসাইল স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় বিকাল ৪টায় সৌদি আরবের মুখোমুখি হবে আর্জেন্টিনা।

রাত ১টায় আল জানুব স্টেডিয়ামে ফ্রান্সের প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া। ফ্রান্স বর্তমান চ্যাম্পিয়ন হলেও দর্শক উন্মাদনা এবার আর্জেন্টিনাকে ঘিরেই বেশি। অধিনায়ক মেসির পঞ্চম ও সম্ভাব্য শেষ বিশ্বকাপের প্রস্তুতিটা দুর্দান্ত হয়েছে। টানা ৩৬ ম্যাচে অপরাজিত থেকে বিশ্বকাপে ৩৬ বছরের শিরোপা খরা ঘোচানোর মিশনে নামছে কোপা চ্যাম্পিয়নরা। স্বপ্নসারথি মেসিও আছেন সেরা ছন্দে। ৩৫ বছর বয়সি পিএসজি তারকার বর্ণিল ক্যারিয়ারের একমাত্র অপূর্ণতা ঘোচাতে তার সতীর্থরাও এবার উন্মুখ।

চোটের থাবায় জিওভানি লো সেলসো, হোয়াকিন কোরেয়া ও নিকো গঞ্জালেজ বিশ্বকাপ দল থেকে ছিটকে গেলেও তাতে আর্জেন্টিনার আত্মবিশ্বাসে চিড় ধরেনি। কারণ, সব পজিশনেই যোগ্য বিকল্প আছে তাদের। তবে কাতারে আসার পর প্রথম দুদিন দলের সঙ্গে মেসি অনুশীলন না করায় কিছুটা শঙ্কার কালো মেঘ জমেছিল। পরে কেটে গেছে সেই মেঘ। জানা গেছে, আজ সৌদি আরবের বিপক্ষে মাঠে নামার জন্য পুরোপুরি ফিট আর্জেন্টিনা অধিনায়ক।

বিশ্বকাপ জেতার শেষ সুযোগটা কাজে লাগাতে মরিয়া মেসি চোটের ঝুঁকি এড়াতে দুদিন একা অনুশীলন করেন। শক্তি-সামর্থ্যে সৌদি আরবের চেয়ে আর্জেন্টিনা যোজন যোজন এগিয়ে থাকলেও প্রথম ম্যাচের প্রতিপক্ষকে হালকাভাবে নিতে নারাজ মেসি। ‘সি’ গ্রুপের অন্য দুই প্রতিপক্ষ পোল্যান্ড ও মেক্সিকোকে নিয়েও সতর্ক তিনি। মেসির ভাষায়, ‘‘বিশ্বকাপে ‘অতীত’ সাহায্য করবে না। বিশ্বকাপে সহজ ম্যাচ, সহজ গ্রুপ বলে কিছু নেই। নকআউট পর্বে যেতে হলে গ্রুপের তিন ম্যাচেই ভালো খেলতে হবে।’’

কাগজে-কলমে ‘সি’ গ্রুপের সবচেয়ে দুর্বল দল সৌদি আরব। ফিফা র‌্যাংকিংয়ের ৫১ নম্বরে থাকা হার্ভি রেনারের দলে বড় কোনো তারকা নেই। গত বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে সৌদিকে ৫-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছিল রাশিয়া। আজ লুসাইলও সাক্ষী হতে পারে গোল উৎসবের। আর্জেন্টিনার আক্রমণভাগে মেসির সঙ্গে থাকবেন আনহেল দি মারিয়া ও লাওতারো মার্তিনেজ। আকুনিয়া, রদ্রিগো দি পল, লিয়ান্দ্রো পারেদেসের মতো মাঝমাঠের সেনানীরাও সৌদি রক্ষণে আতঙ্ক ছড়াতে পারেন। পরিসংখ্যানেও এগিয়ে দুবারের বিশ্ব চ্যাম্পয়নরা। সৌদি আরবের বিপক্ষে আগের চার ম্যাচের দুটিতে জিতেছে আর্জেন্টিনা। বাকি দুটি ড্র হয়েছে।

Side banner