মঙ্গলবার, ০৩ অক্টোবর, ২০২৩, ১৭ আশ্বিন ১৪৩০

কোলেস্টেরল কী? এ সম্পর্কে আপনার যা কিছু জানা প্রয়োজন

জীবন যাপন ডিসেম্বর ৪, ২০২২, ১২:০৬ পিএম
কোলেস্টেরল কী? এ সম্পর্কে আপনার যা কিছু জানা প্রয়োজন
কোলেস্টেরল

কোলেস্টেরল হল আমাদের দেহ দ্বারা প্রস্তুত একটি স্নেহ/চর্বি জাতীয় পদার্থ। প্রত্যেকের শরীরেই কিছুটা পরিমাণে আছে। সুস্বাস্থ্যের জন্য এটি অপরিহার্য। যাইহোক, কিছু মানুষের অতিরিক্ত পরিমাণে কোলেস্টেরল থাকতে পারে। এবং, যাদের উচ্চ কোলেস্টেরল আছে, তাদের স্ট্রোক, হার্ট অ্যাটাক হবার বেশি ঝুঁকি থাকে এবং তার সঙ্গে যাঁদের কম কোলেস্টেরল আছে, তাদের তুলনায় অন্য অনেক অসুখ হবার সম্ভাবনা আছে। যত বেশি কোলেস্টেরল, তত বেশি বেশি ঝুঁকি।

কোলেস্টেরলের কি প্রকারভেদ আছে?
হ্যাঁ, এর কিছু প্রকারভেদ আছে। যদি আপনি কোলেস্টেরল পরীক্ষা করান, এর ব্যাপারে তবে আপনার চিকিৎসক আপনার সঙ্গে কথা বলবেন:

# মোট কোলেস্টরল

# এলডিএল (কম ঘনত্বের লাইপোপ্রোটিন) কোলেস্টরল – একে খারাপ কোলেস্টেরলও বলা হয়। কারণ এটি আপনার ধমনীর উপর পুরু আস্তরণ তৈরি করএ যা আপনার হৃদরোগের ঝুঁকিকে বাড়িয়ে তোলে।

# এইচডিএল (উচ্চ ঘনত্বের লাইপোপ্রোটিন) কোলেস্টেরল – এইচডিএল-কে ভালো কোলেস্টেরলও বলা হয়। তার কারণ, যেসব মানুষের উচ্চ এইচডিএল আছে, তাদের হার্ট অ্যাটাক, স্ট্রোক, এবং অন্যান্য অসুখের ঝুঁকিও অনেক কম থাকে।

# নন-এইচডিএল কোলেস্টেরল – নন -এইচডিএল কোলেস্টেরল হল আপনার মোট কোলেস্টেরল বিয়োগ আপনার এইচডিএল কোলেস্টেরল।

# ট্রাইগ্লিসারিড – ট্রাইগ্লিসারিড কোলেস্টেরল নয়। এগুলি এক অন্য প্রকৃতির স্নেহপদার্থ। কিন্তু যখন কোলেস্টেরল মাপা হয়, তখন অনেক সময় এটিকেও পরিমাপ করা হয়। (উচ্চ ট্রাইগ্লিসারিড থাকার অর্থ হার্ট অ্যাটাক ও স্ট্রোকের ঝুঁকি বৃদ্ধি করা)

# আপনার কত থাকা উচিৎ?

আপনার কোলেস্টেরল কত থাকা উচিৎ সে বিষয়ে আপনার চিকিৎসক বা নার্সের সঙ্গে কথা বলুন। ভিন্ন ভিন্ন মানুষের ভিন্ন লক্ষ্যমাত্রা থাকে। সাধারণত, যে সব মানুষের কোনো হৃদরোগ নেই, তাদের লক্ষ্য:

# মোট কোলেস্টেরল থাকবে ২০০ এর নিচে

# এলডিএল কোলেস্টেরল থাকবে ১৩০ – বা তারও নিচে, যদি তাদের হার্ট অ্যাটাক বা মাথা যন্ত্রণার ঝুঁকি থাকে

# এইচডিএল কোলেস্টেরল থাকবে ৬০ এর উপরে

# নন- এইচডিএল কোলেস্টেরল ১৬০ এর নিচে, যদি তাদের হার্ট অ্যাটাক অথবা স্ট্রোকের ঝুঁকি থাকে

# ১৫০ এর নিচে ট্রাইগ্লিসারিড

তবুও মনে রাখতে হবে যে অনেক মানুষই এই লক্ষ্যমাত্রা পূরণ করতে পারেন না। কিন্তু তা সত্ত্বেও তাঁদের হার্ট অ্যাটাক ও স্ট্রোকের ঝুঁকি কম।

যদি আমার চিকিৎসক আমায় বলেন যে আমার উচ্চ কোলেস্টেরল আছে, তবে আমার কী করণীয়?

আপনার চিকিৎসককে জিজ্ঞাসা করুন যে আপনার হার্ট অ্যাটাক ও স্ট্রোকের সামগ্রিক ঝুঁকি কতটা? উচ্চ কোলেস্টেরল একা কখনোই চিন্তার ব্যাপার নয়। উচ্চ কোলেস্টেরল হল আপনার হার্ট অ্যাটাক এবং স্ট্রোকের ঝুঁকি বৃদ্ধি করার অনেকগুলি কারণের মধ্যে একটি। অন্য যে কারণগুলি আপনার ঝুঁকিকে বাড়িয়ে তুলতে পারে তা হল:

# ধূমপান

# উচ্চ রক্তচাপ

# এমন বাবা-মা, বোন বা ভাই থাকা যাদের খুব কম বয়সে হৃদরোগ হয়েছিল – কম বয়স এই অর্থে যে,  পুরুষের ক্ষেত্রে ৫৫ বছরের থেকে কম এবং মহিলাদের ক্ষেত্রে ৬৫ এর থেকে কম।

# এমন একটি খাদ্যাভ্যাস যা হৃৎপিণ্ডের পক্ষে স্বাস্থ্যকর নয় – “হৃৎপিণ্ডের পক্ষে স্বাস্থ্যকর” খাদ্যাভ্যাসে অনেক ফল এবং সবজি, তন্তু এবং স্বাস্থ্যকর স্নেহপদার্থ থাকে (যেমনটা মাছ ও কিছু নির্দিষ্ট তেলে পাওয়া যায়)

# বৃদ্ধ বয়স

যদি আপনার হার্ট অ্যাটাক ও স্ট্রোকের ঝুঁকি বেশি থাকে, তবে উচ্চ কোলেস্টেরল থাকা সমস্যাজনক। বিপরীতে, যদি আপনার ঝুঁকি কম থাকে,If you are at high risk of heart  তবে উচ্চ কোলস্টেরলের চিকিৎসার প্রয়োজন পড়বে না।

আমার উচ্চ কোলেস্টেরলের মাত্রা কীভাবে কমাব?

আপনাকে আপনার কোলেস্টেরলের মাত্রাকে নিয়ন্ত্রণে রাখার জন্য আপনার জীবনশৈলীতে অল্প কিছু পরিবর্তন করতে হবে। নিম্নে কিছু পরামর্শ দেওয়া হল

কোলেস্টেরল কমানোর জন্য কি আমার ওষুধ খাওয়া উচিৎ?

যাদের উচ্চ কোলেস্টেরল আছে, তাদের প্রত্যেকেরই ওষূধ খাবার দরকার নেই। যদিও একজন চিকিৎসা-বিভাগের সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তি বা চিকিৎসক আপনার বয়স, পারিবারিক ইতিহাস এবং অন্যান্য শারীরিক অবস্থার উপর নির্ভর করে সিদ্ধান্ত নেবেন যে আপনার ওষুধের দরকার আছে কি না।

আপনাকে স্ট্যাটিন, একটি কোলেস্টেরল কমানোর ওষুধ খেতে হবে, যদি আপনার:

# ইতিমধ্যেই হার্ট অ্যাটাক বা স্ট্রোক হয়ে গিয়ে থাকে।

# পরিচিত কোনো হৃদরোগ থাকে

# বহুমূত্ররোগ থাকে

# বহির্ধমনী সংক্রান্ত রোগ থাকে যার জন্য আপনার পায়ে উপস্থিত ধমনী ফ্যাটজাতীয় পদার্থে অবরুদ্ধ হয়ে গেছে। এর ফলে হাঁটতে কষ্ট হয়

# পেটের মহাধমনীর বিকার, যা পেটের মহাধমনীর স্থূলকরণ

উপরোক্তগুলির মধ্যে যে কোনও একটি সমস্যা যদি কারো থেকে থাকে, তবে তাঁদের কোলেস্টেরলের মাত্রা যাই থেকে থাক, তাঁরা স্ট্যাটিন গ্রহণ করতে পারেন। যদি ডাক্তার বা নার্স আপনাকে স্ট্যাটিন খেতে দেন, তবে সেটাই খান। যদিও এতে আপনাকে কিছু আলাদা দেখাবে না, এটি কেবল আপনার হার্ট অ্যাটাক, স্ট্রোক এবং মৃত্যু প্রতিরোধ করতে সাহায্য করবে।

ওষুধ ছাড়া কি আমি আমার? কোলেস্টেরল কমাতে পারি?

হ্যাঁ, আপনি আপনার কোলেস্টেরল কিছূটা কমাতে পারেন এগুলো করে:

# স্বাস্থ্যকর খাবার খেয়ে: ফ্যাটি দুগ্ধজাত পদার্থ এবং গোরু, ভেড়া ও ছাগলের মাংসে কম সম্পৃক্ত স্নেহ পদার্থ পাওয়া যায়।

# বেশ কিছু বেকারি দ্রব্য যেমন কুকিজ, ক্র্যাকার এবং কেকে ট্রান্স ফ্যাট পাওয়া যায়, সেগুলি ত্যাগ করতে পারেন। ওমেগা-৩  যুক্ত ফ্যাটি অ্যাসিড সমৃদ্ধ খাবার খেতে পারেন যা মাছ, আখরোট এবং তিসির বীজে পাওয়া যায়। দ্রাব্য তন্তুর পরিমাণ বৃদ্ধি করুন যেমন ওটমিল, অঙ্কুরিত ছোলা, কিডনি বিনস, পেয়ারা, এবং আপেল।

# বেশি করে সচল থাকুন: নিজের শারীরিক কার্যকলাপ বাড়িয়ে দিন। সপ্তাহে অন্তত তিন দিন ব্যায়াম করুন।

# ধূমপান ছেড়ে দিন: ধূমপান ত্যাগ করার সুফল শীঘ্রই দেখা যায়। এটি আপনার এইচডিএল “ভালো কোলেস্টেরল” এর মাত্রা বৃদ্ধি করে।

# ওজন কমানো (যদি আপনার অতিরিক্ত ওজন থাকে): অতিরিক্ত ওজন এলডিএল “খারাপ” কোলেস্টেরলের মান বৃদ্ধি করে।

যদি এই ধাপগুলি আপনার কোলেস্টেরলে সামান্যও পরিবর্তন আনতে পারে তবেও আপনার স্বাস্থ্যের নানা ভাবে উন্নতি হবে। যদি আপনার ডাক্তার আপনাকে কোলেস্টেরল কমানোর জন্য ওষুধ দেন, তবে উপরোক্ত জীবনশৈলীগুলির পরিবর্তনের সঙ্গে সঙ্গে এই ওষুধগুলি খাবেন। এর ফলে আপনার ওষুধের ডোজ কমে যেতে পারে।

আপনাকে ব্যাপক হৃদপিণ্ডের পরীক্ষার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে, যার মধ্যে রয়েছে কিছুদিন অন্তর অন্তর লিপিড প্রোফাইল রক্ত পরীক্ষা, যাতে কোলেস্টেরল সংক্রান্ত হৃদপিণ্ডের যে কোনো সমস্যা এড়ানো যায়।

সূত্র: হেলথ লাইব্রেরি.আসক অ্যাপোলো

আরও পড়ুন

Side banner