বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০

সরকারি কর্মচারীদের রিটার্ণ দাখিল নিয়ে যে তথ্যগুলো জেনে রাখা দরকার

জীবন যাপন | উজ্জল প্রধান আগস্ট ৫, ২০২৩, ১১:০৪ এএম
সরকারি কর্মচারীদের রিটার্ণ দাখিল নিয়ে যে তথ্যগুলো জেনে রাখা দরকার

করদাতা যদি সরকার অথবা সরকারের কোন কর্তৃপক্ষ, কর্পোরেশন, সত্তা বা ইউনিটের বা প্রচলিত কোন আইন, আদেশ বা দলিলের মাধ্যমে গঠিত কোন কর্তৃপক্ষ, কর্পোরেশন, সত্ত্বা বা ইউনিটের কর্মচারী (Employee) হয়ে আয় বছরের যে কোন সময় ১৬০০০ টাকা বা তদুর্ধ্ব পরিমাণ মূল বেতন আহরণ করে থাকেন।

আর পড়ুন:
আইবাস++ পাস রিপোর্ট, অ্যকাকউন্ট অফিস ইএফটি করলে বিল স্ট্যাটাস কি দেখাবে?

আর পড়ুন: পে স্কেলের সর্বশেষ আপডেট খবর

যাদের জন্য রিটার্ণ দাখিল বাধ্যতামূলক
১. যিনি ১২ ডিজিটের টিআইএন গ্রহণ করেছেন;

২. করদাতার মোট আয় করমুক্ত সীমা অতিক্রম করলে;

৩. আয় বছরের পূর্ববর্তী তিন বছরের যে কোন বছর করদাতার কর নির্ধারণ হয়ে থাকে তার আয় করযোগ্য আয় কিনা।

৪. করদাতা যদি কোন কোম্পানির শেয়ারহোল্ডার পরিচালক বা শেয়ারহোল্ডার employee হন;

৫. করদাতা যদি কোন ফার্মের অংশীদার হন;

আর পড়ুন: রাষ্ট্রপতির ক্ষমা এবং যে প্রক্রিয়ায় মুক্তি পেলেন একজন সরকারি কর্মকর্তা

৬. করদাতা যদি সরকার অথবা সরকারের কোন কর্তৃপক্ষ, কর্পোরেশন, সত্তা বা ইউনিটের বা প্রচলিত কোন আইন, আদেশ বা দলিলের মাধ্যমে গঠিত কোন কর্তৃপক্ষ, কর্পোরেশন, সত্ত্বা বা ইউনিটের কর্মচারী (employee) হয়ে আয় বছরের যে কোন সময় ১৬০০০ টাকা বা তদুর্ধ্ব পরিমাণ মূল বেতন আহরণ করে থাকেন;

৭. করদাতা যদি কোন ব্যবসায় বা পেশায় নির্বাহী বা ব্যবস্থাপনা পদে (যে নামেই অভিহিত হোক না কেন) বেতনভোগী কর্মী (Employee) হন;

৮. করদাতার আয় কর অব্যাহতি প্রাপ্ত বা হ্রাসকৃত হারে করযোগ্য হয়ে থাকে;

৯. করদাতা যদি মোটর গাড়ির মালিক হন (মোটর গাড়ি বলতে জীপ বা মাইক্রোবাসকেও বুঝাবে);

১০. করদাতা যদি কোন সিটি কর্পোরেশন, পৌরসভা বা ইউনিয়ন পরিষদ হতে ট্রেড লাইসেন্স গ্রহণ করে কোন ব্যবসা বা পেশা পরিচালনা করেন;

১১. করদাতা যদি মূল্য সংযোজন কর আইনের অধীন নিবন্ধিত কোন ক্লাবের সদস্যসদ থাকে;

১২. করদাতা যদি চিকিৎসক, দন্ড চিকিৎসক, আইনজীবী, চার্টার্ড একাউন্টেন্ট , কস্ট এন্ড ম্যানেজমেন্ট একাউন্টেন্ট, প্রকৌশলী, স্থপতি অথবা সার্ভেয়ার হিসেবে বা সমজাতীয় পেশাজীবী হিসেবে কোন স্বীকৃত পেশাজীবী সংস্থার নিবন্ধিত হন;

১৩. করদাতা যদি আয়কর পেশাজীবী (income tax practitioner) হিসেবে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের নিবন্ধিত হন;

১৪. করদাতা যদি বণিক বা শিল্প বিষয়ক চেম্বার বা ব্যবসায়িক সংঘ বা সংস্থার সদস্য হন;

১৫. করদাতা যদি কোন পৌরসভা বা সিটি কর্পোরেশনের কোন পদে বা সংসদ সদস্য পদে প্রার্থী হন;

১৬. করদাতা যদি কোন সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্বশাসিত সংস্থা বা কোন স্থানীয় সরকারের কোন টেন্ডারে অংশগ্রহণ করেন;

১৭. করদাতা যদি কোন কোম্পানির বা কোন গ্রুপ অব কোম্পানিজের পরিচালন পর্ষদে থাকেন;

১৮. করদাতা যদি মেটরযান, স্পেস/স্থান, বাসস্থান অথবা অন্যান্য সম্পদ সরবরাহের মাধ্যমে শেয়ারড ইকোনোমিক এক্টিভিটিজে অংশগ্রহণ করেন; এবং

১৯. করদাতা যদি লাইসেন্সধারী অস্ত্রের মালিক হন;

২০. সঞ্চয়পত্র ক্রয়ে মোট বিনিয়োগ দুই লক্ষ টাকা অতিক্রম করলে;

২১. দুই লক্ষ টাকার অধিক পোস্টাল সঞ্চয় হিসাব খুলতে; এবং

২২. সমবায় সমিতির রেজিস্ট্রেশন।

কোন কোন ব্যাংক হতে পত্র প্রেরণ করা হচ্ছে যে, বেতন গ্রহণকারীদের অবশ্যই রিটার্ণ স্লিপ দাখিল করতে হবে।

 আরও পড়ুন: পিআরএল (PRL) ও এলপিআর (LPR) এর মধ্যে পার্থক্য

 

Side banner